গত ১৫ ই আগস্ট ভারতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির অবসরের পরে অবসর নেন আরেক ভারতীয় তারকা ক্রিকেটার সুরেশ রায়না।অবসরের পর  নিজের ভক্ত-অনুরাগীদের জন্য একটি খোলা চিঠিতে এমনটাই জানিয়েছেন সুরেশ রায়না।

২০০৫ সালে শ্রীলংকার বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে যাত্রা শুরু হয় সুরেশ রায়নার। এরপর ২০১৮ সালে ভারতীয় জাতীয় দলের জার্সি গায়ে সর্বশেষ মাঠে দেখা যায় তাকে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ৩৩ বছর বয়সী সদ্যবিদায়ী এই ক্রিকেটার লিখেন-” এই মুহূর্তে অনেক আবেগ কাজ করছে আমার মধ্যে কিন্তু আবেগকে সংযত রেখেই অবসরের ঘোষণা দিয়েছি। জাতীয় দলে খেলার আগেই রাস্তার ক্রিকেট এবং গোলির ক্রিকেটের সাথে পরিচিত আমি। আমার সব জানা এবং শেখার সবকিছুই ক্রিকেট নিয়ে। ক্রিকেট আমার শিরায় শিরায়।”

সতীর্থ ক্রিকেটারদের প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করে সুরেশ রায়না বলেন, “আমি গর্বিত রাহুল (দ্রাবিড়) ভাই, অনীল (কুম্বলে) ভাই, শচীন (টেন্ডুলকার) পাজি, চিকু (বিরাট) এবং অবশ্যই মহেন্দ্র সিং ধোনির মতো কয়েকজন ভালো অধিনায়কের নেতৃত্বে খেলতে পেরে। যারা আমার বন্ধু এবং মেন্টর হিসেবে আমায় আগলে রেখেছিলেন সবসময়। তাই ভারতীয় ক্রিকেট দল আজীবন আমার হৃদয়ে থাকবে।”

ভারতীয় জাতীয় ক্রিকেট দলের হয়ে  সর্বমোট ৩২২টি আন্তর্জাতিক  ম্যাচ খেলা রায়না বলেন, ‘আমি যে পরিমাণ সমর্থন পেয়েছি তার পরিবর্তে আমি খেলার মাঠে নিজেকে উজাড় করে দিয়েছি। আমার দেশবাসীর জন্য এবং আমার এই যাত্রাপথের যারা শরিক তাদের জন্য সর্বস্ব দিয়েছি। এই পথ চলাটা সম্ভব হত না বাবা-মায়ের নিঃস্বার্থ সমর্থন ছাড়া। স্ত্রী প্রিয়াঙ্কা, দুই সন্তান গার্সিয়া এবং রিও, আমার ভাই, আমার বোন, আমার পরিবারের সকল সদস্যদের ছাড়া।’

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here